Connect with us

Uncategorized

আ্যনেসথেসিয়া’র জন্ম কি ব্যাথা থেকে?

DENTALTIMESBD.com

Published

on

DentalTimes

আঠারোশ চল্লিশ দশকের আগে রোগীরা দুশ্চিন্তা নিয়ে নয় কিন্তু প্রচণ্ড ভয়ে ভয়ে অপারেশন রুমে ঢুকত! কিন্তু কেন? কারণ রোগী যাতে ব্যথা অনুভব করতে না পারে সেই জন্য তাকে অনুভূতিহীন করার কোন উপায় তখন ছিল না। ডেনিস ফ্র্যাডিন আমরা ব্যথাকে জয় করেছি” (ইংরেজি) বইয়ে বলেন: “ডাক্তাররা দুবোতল মদ নিয়ে অপারেশন থিয়েটারে ঢুকতেন। এক বোতল রোগীর জন্য আর অন্য বোতল তার নিজের জন্য, যাতে ব্যথায় কাতর রোগী যখন চিৎকার করে উঠবে তখন তা তিনি সইতে পারেন।” [page 2 & 19: Reproduced from Medicine and the Artist (Ars Medica) by permission of the Philadelphia Museum of Art/Carl Zigrosser/ Dover Publications, Inc.]

রোগীকে মাতাল অথবানেশাচ্ছন্নকরা !

অপারেশনের সময় ব্যথা লাঘব করার জন্য ডাক্তার, দন্ত চিকিৎসকরা আর এমনকি রোগীরাও যথাসাধ্য চেষ্টা করতেন।  চীন ও ভারতের ডাক্তাররা গাঁজা ও হাশিস ব্যবহার করতেন।  পৃথিবীর অনেক দেশে আফিম এবং মদও ব্যবহার করা হতো।  প্রাচীন গ্রিক ডাক্তার ডায়োক্রোডিস নিদ্রাকর্ষক উদ্ভিদ ও মদ মিশিয়ে বানানো ওষুধকে অনুভূতিনাশক শক্তির উৎস বলে উল্লেখ করেছিলেন আর তিনিই সবচেয়ে প্রথমে “আ্যনেসথেসিয়া” বা অনুভূতিবিলোপ শব্দটা ব্যবহার করেছিলেন বলে মনে করা হয়।  এর পরে কিছু ডাক্তাররা এমনকি সম্মোহনবিদ্যা কাজে লাগিয়েও পরীক্ষা করে দেখেছেন।

কিন্তু তারপরেও ব্যথা থেকেই যেত, পুরোপুরি উপশম হতো না।  তাই, ডাক্তার ও ডেনটিস্টরা চেষ্টা করতেন যাতে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব অপারেশন করে ফেলা যায় আর তারা কত তাড়াতাড়ি অপারেশন করতে পারেন তার ওপর ভিত্তি করে তাদের পদমর্যাদা দেওয়া হতো।  কিন্তু তাড়াতাড়ি করে করলেও অনেক ব্যথা লাগত।  আর তাই, লোকেরা অপারেশন করার বা দাঁত ওঠানোর সময়কার ব্যথার কথা ভেবে টিউমার অপারেশন করার বা নষ্ট দাঁত উঠিয়ে ফেলার কথা চিন্তাও করত না বরং সবরকমের অসুখের কষ্টই সহ্য করত।

DentalTimes

সুইট ভিট্রিওল লাফিং গ্যাস

১২৭৫ সালে স্প্যানিশ ডাক্তার রেমন্ড লুলেস রাসায়নিক পদার্থ নিয়ে পরীক্ষা করার সময় একরকমের তরল পদার্থ তৈরি করেন, যা উদ্বায়ী ও সহজে দাহ্য আর এটাকেই তিনি সুইট ভিট্রিওল নাম দিয়েছিলেন। প্যারাসেলসাস নামে সুপরিচিত সুইজারল্যান্ডের একজন ডাক্তার ষোড়শ শতকে কয়েকটা মুরগির নাকের কাছে সুইট ভিট্রিওল রাখেন এবং মুরগিগুলো যখন নিঃশ্বাসের মাধ্যমে তা গ্রহণ করে তখন তিনি লক্ষ্য করেন যে, সেগুলো শুধু ঘুমিয়েই পড়ছে না সেইসঙ্গে কোন ব্যথাও পায় না। লুলেসের মতো তিনিও মানুষের ওপর তা প্রয়োগ করে পরীক্ষা করেননি। ১৭৩০ সালে জার্মান রসায়নবিদ ফ্রবিনিয়াস এই তরল পদার্থকে ইথার নাম দেন, গ্রিক ভাষায় যেটার মানে হল “স্বর্গীয়” আর এই ইথার নামটা এখনও রয়ে গেছে। কিন্তু, প্রায় ১১২ বছরের বেশি সময় পরে পুরোপুরিভাবে বোঝা যায় যে ইথারের চেতনানাশক ক্ষমতা আছে।

এর মধ্যে ইংরেজ বিজ্ঞানী জোসেফ প্রিস্টলি ১৭৭২ সালে নাইট্রাস অক্সাইড গ্যাস আবিষ্কার করেন। প্রথম প্রথম লোকেরা মনে করত, এই গ্যাস নিঃশ্বাসের সঙ্গে সামান্য পরিমাণে নেওয়াও মারাত্মক। কিন্তু, এই গ্যাস আসলেই মারাত্মক কি না তা যাচাই করে দেখার জন্য ১৭৯৯ সালে ব্রিটিশ রসায়নবিদ ও উদ্ভাবক হামফ্রে ডেভি নিজেই তা নিয়ে দেখবেন বলে ঠিক করেন। কিন্তু মজার ব্যাপার হল যে নাইট্রাস অক্সাইড গ্রহণ করার পর তার হাসি পেতে থাকে আর এইজন্যই তিনি এটাকে লাফিং গ্যাস নাম দেন।  নাইট্রাস অক্সাইডের চেতনানাশক ধর্মগুলো সম্বন্ধে ডেভি লেখেন কিন্তু কেউই তার কথা বিশ্বাস করেননি।

বিভিন্ন পার্টিতে ইথার লাফিং গ্যাসের ব্যবহার

লাফিং গ্যাস নিয়ে কিছু সময় ধরে ডেভির হাস্যকর আচরণ করার কথা সবার মধ্যে জানাজানি হয়ে যায়। শীঘ্রিই অনেকে শুধু মজা করার জন্য এটাকে নিতে শুরু করে। এমনকি চিত্তবিনোদনকারী দলগুলো বিভিন্ন জায়গায় গিয়ে অনুষ্ঠান করার সময় শ্রোতাদের মাঝ থেকে কিছু ব্যক্তিদের মঞ্চে আসার আমন্ত্রণ জানাতেন ও পালা করে তাদেরকে নাইট্রাস অক্সাইড দিতেন। গ্যাস গ্রহণ করার পর তাদের লজ্জা ও সংকোচের অনুভূতি দূর হয়ে যেত এবং শীঘ্রিই তারা মজার মজার কাণ্ড করতে শুরু করত আর তা দেখে শ্রোতারা হাসিতে ফেটে পড়ত।

DentalTimesওই সময়ই বিনোদনমূলক অনুষ্ঠানে আনন্দ দেওয়ার জন্য ইথারও বেশ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে।  একবার ক্রফোর্ড ডব্লু. লং নামে আমেরিকার একজন ডাক্তার খেয়াল করেন, তার কয়েকজন বন্ধু ইথার গ্রহণ করে টালমাটাল অবস্থায় একজন আরেকজনকে আঘাত করছে অথচ তারা ব্যথা পাচ্ছে না।  সঙ্গে সঙ্গে তিনি এটাকে অপারেশনে ব্যবহার করার বিষয়ে চিন্তা করেন।  আর তিনি তা ব্যবহার করার একটা সুযোগও পেয়ে যান।  জেমস ভেনেবেল নামে এক ছাত্র ওই “ইথার পার্টিতে” অংশ নিয়েছিলেন।  তার ছোট ছোট দুটো টিউমার হয়েছিল যেগুলোকে তিনি কাটতে চাচ্ছিলেন।  কিন্তু, অপারেশনের সময় যে ব্যথা সহ্য করতে হয় তার ভয়ে ভেনেবেল অপারেশনের তারিখ শুধু পিছাতেই থাকেন।  তাই, লং তাকে ইথার গ্রহণ করে অপারেশন করার পরামর্শ দিয়েছিলেন। ভেনেবেল তাতে রাজি হন এবং ১৮৪২ সালের ৩০শে মার্চ ইথার প্রয়োগ করে তার অপারেশন করা হয় আর অপারেশনের সময় তিনি কোন ব্যথা অনুভব করেননি।  কিন্তু, লং তার এই আবিষ্কারের বিষয়ে চুপচাপ থাকেন, ১৮৪৯ সালের আগে পর্যন্ত তিনি এই বিষয়ে ঘোষণা করেননি।

লেখাটির দ্বিতীয় পর্বে থাকবে দন্ত চিকিৎসকদের আ্যনেসথেসিয়া আবিষ্কার সম্পর্কে

Continue Reading

Uncategorized

যশোর : ২২ চিকিৎসক-নার্সসহ ২৮ জন কোয়ারেন্টাইনে

DENTALTIMESBD.com

Published

on

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত দুই রোগীর সংস্পর্শে আসায় যশোর জেনারেল হাসপাতালের ১১ চিকিৎসক, ১১ নার্স মোট ২৮ জন স্বাস্থ্যকর্মীকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। বুধবার হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়কের জারি করা অফিস আদেশে এই কথা জানানো হয়।

বৃহস্পতিবার (৩০ এপ্রিল) হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. দিলীপ কুমার রায় এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো এসব ডাক্তার ও নার্স করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়া রোগীদের কনটাক্টে এসেছিলেন। হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. আরিফ আহমেদের সঙ্গে যোগাযোগ করে পর্যায়ক্রমে এই হাসপাতালের সবার নমুনা পরীক্ষা করতে বলা হয়েছে।

ডা. দিলীপ কুমার রায় বলেন, করোনা আক্রান্ত দুই রোগীর সংস্পর্শে যেসব ডাক্তার, নার্স ও কর্মচারী এসেছিলেন তাদের শনাক্ত করে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। ১১ জন ডাক্তার ও ১১ জন নার্স ছাড়াও পরিচ্ছন্নতাকর্মী, ওয়ার্ড বয় ও আয়া মিলিয়ে মোট ২৮ জনকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। কোয়ারেন্টাইনের মেয়াদ হবে ১৪ দিন। এই সময়কালে তাদের সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। এমন পরিস্থিতিতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ প্রাথমিক পদক্ষেপ হিসেবে করোনারি কেয়ার ইউনিট ও মেডিসিন ওয়ার্ড লকডাউন করে দেন। গুরুত্বপূর্ণ ইউনিট দুটি জীবাণুমুক্ত করার পদক্ষেপও নেওয়া হয়। ওই দুই স্থানে চিকিৎসাধীন রোগীদের স্থানান্তর করা হয় অন্য ওয়ার্ডে।

গত কয়েকদিনে শনাক্ত হওয়া করোনা পজেটিভদের বেশ কয়েকজনকে যশোর টিবি হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। যারা ওই হাসপাতালে যেতে অনাগ্রহ প্রকাশ করেছেন, তাদের নিজ নিজ বাড়িতে চিকিৎসাধীন রাখা হয়েছে।

যশোর টিবি হাসপাতালকে অস্থায়ী করোনা হাসপাতাল হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। এখানে করোনাভাইরাস আক্রান্তদের সেবার কাজে নিয়োজিতরা পাশেই নাজির শঙ্করপুরে অবস্থিত শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কের ডরমেটরিতে অবস্থান করছেন।

Continue Reading

Uncategorized

যে চারটি বেসরকারি হাসপাতালে হবে করোনাভাইরাস পরীক্ষা

DENTALTIMESBD.com

Published

on

বেসরকারি হাসপাতালে হবে করোনাভাইরাস পরীক্ষা

দেশে কোভিড-১৯ এর প্রকোপ বাড়তে থাকায় পরীক্ষার আওতা বাড়ানোর জন্য প্রথমবারের মত চারটি বেসরকারি হাসপাতালকে করোনাভাইরাস পরীক্ষা এবং চিকিৎসার অনুমতি দিয়েছে সরকার।

এর মধ্যে ঢাকার এভারকেয়ার হাসপাতাল (সাবেক অ্যাপোলা), স্কয়ার হাসপাতাল ও ইউনাইটেড হাসপাতাল শুধু তাদের ভর্তি রোগীদের নমুনা পরীক্ষা করবে।

আর নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের ইউএস-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসাপাতাল বাইরের রোগীদের নমুনাও পরীক্ষা করতে পারবে।

বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

তিনি বলেন, “তারা যে নমুনা পরীক্ষা করবেন আমরা তা আগামীকাল থেকে অথবা যখন তারা কাজ শুরু করবেন তখন থেকে হিসাবে যুক্ত করব।”

তিনটি হাসপাতালকে বাইরের রোগীর নমুনা পরীক্ষার অনুমতি না দেওয়ার কারণ ব্যাখ্যা করে নাসিমা সুলতানা বলেন, “অনেক ক্ষেত্রে ফলোআপে সমস্যা হতে পারে, সে কারণে তাদের এখনও তাদের আউটডোর পেশেন্টের নমুনা পরীক্ষার অনুমতি দেওয়া হয়নি।”

এই চারটি বেসরকারি হাসপাতাল মিলিয়ে দেশে সব মিলিয়ে এখন ২৯টি মেডিকেল প্রতিষ্ঠানে করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষার ব্যবস্থা হল।

বুধবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় দেশে রেকর্ড ৬৪১ জনের মধ্যে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ায় আক্রান্তের মোট সংখ্যা বেড়ে ৭১০৩ জন হয়েছে। এই সময়ে আরও আটজনের মৃত্যুর মধ্য দিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৬৩ জন হয়েছে।

Continue Reading

Uncategorized

২৪ ঘণ্টায় আরও ৮ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ৬৪১

DENTALTIMESBD.com

Published

on

অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা

দেশে মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও আটজন মারা গেছেন। এ নিয়ে ভাইরাসটিতে মোট ১৬৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হিসেবে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন আরও ৬৪১ জন। ফলে দেশে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা সাত হাজার ১০৩ জন।

বুধবার (২৯ এপ্রিল) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। অনলাইনে বুলেটিন উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

তিনি জানান, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও চার হাজার ৯৬৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। সব মিলিয়ে নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫৯ হাজার ৭০১টি। নতুন যাদের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে, তাদের মধ্যে আরও ৬৪১ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ফলে মোট করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন সাত হাজার ১০৩ জন। আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে মারা গেছেন আরও আটজন। ফলে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৬৩ জনে। এছাড়া সুস্থ হয়েছেন আরও ১১ জন। ফলে মোট সুস্থ হয়েছেন ১৫০ জন।

যারা নতুন করে মারা গেছেন, তাদের মধ্যে ছয়জন পুরুষ এবং দুজন নারী। ছয়জন ঢাকার বাসিন্দা এবং দুজন ঢাকার বাইরের। বয়সের দিক থেকে চারজন ষাটোর্ধ্ব, দুজন পঞ্চাশোর্ধ্ব এবং দুজন ত্রিশোর্ধ্ব।

করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি এড়াতে সবাইকে ঘরে থাকার এবং স্বাস্থ্য অধিদফতর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ-নির্দেশনা মেনে চলার অনুরোধ জানানো হয় বুলেটিনে।

প্রায় চার মাস আগে চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস এখন গোটা বিশ্বে তাণ্ডব চালাচ্ছে। চীন পরিস্থিতি অনেকটাই সামাল দিয়ে উঠলেও এখন মারাত্মকভাবে ভুগছে ইউরোপ-আমেরিকা-এশিয়াসহ বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চল। এ ভাইরাসে বিশ্বজুড়ে আক্রান্তের প্রায় সাড়ে ৩১ লাখ। মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে দুই লাখ ১৮ হাজার। তবে নয় লাখ ৬১ হাজারের বেশি রোগী ইতোমধ্যে সুস্থ হয়েছেন।

গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর প্রথম দিকে কয়েকজন করে নতুন আক্রান্ত রোগীর খবর মিললেও এখন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে এ সংখ্যা। বাড়ছে মৃত্যুও।

প্রাণঘাতী এই ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছে সরকার। নিয়েছে আরও নানা পদক্ষেপ। যদিও এরই মধ্যে সীমিত পরিসরে ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকার কিছু পোশাক কারখানা সীমিত পরিসরে খুলতে শুরু করেছে। তবে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা নিশ্চিত করা না গেলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে থাকবে কি-না, তা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা।

অন্যান্য

Continue Reading

জনপ্রিয়