Connect with us

Uncategorized

COVID-19 মহামারী এবং দাঁত ও মাড়ির যত্ন

DENTALTIMESBD.com

Published

on

লেখা ও সম্পাদনাঃ

ডাঃ এনাম আহমেদ, সহযোগী অধ্যাপক, ডেন্টাল পাবলিক হেলথ (ইউ.ডি.সি), খবর ও প্রকাশনা সম্পাদক (বাডি) এবং

ডাঃ সুকান্ত হালদার আকাশ, ডেন্টাল সার্জন, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক, ডেন্টাল টাইমস।

২০১৯ সালের ডিসেম্বর মাসে চিনের উহান শহরে আবিস্কৃত হয় বর্তমান বিশ্বের এবং বিগত শতকের সবচেয়ে ভয়ংকর মহামারী “করোনা ভাইরাস ডিজিস COVID-19”। বিভিন্ন বিজ্ঞানী এবং বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, এই সময়ে প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ তাই হাত ধোয়াকেই সবাই গুরুত্বের চোখে দেখছেন কেননা হাত এবং মুখের সংস্পর্শে এই ভাইরাসটি বিস্তার লাভ করে। তবে ভুলে গেলে চলবে না করোনা ভাইরাস মানবদেহে প্রবেশ করে মূলত নাক, মুখ ও চোখের মাধ্যমে। তাই সংস্পর্শের দিকে খেয়াল রাখার পাশাপাশি আমাদের মুখের সাথে সংশ্লিষ্ট অন্যান্য বিষয়ের প্রতিও খেয়াল রাখা প্রয়োজন। তাই এ ব্যাপারে নিম্নোক্ত নির্দেশাবলী মেনে চলা গুরুত্বপূর্ণ।

Dental Times

১. আপনার টুথব্রাশটি অন্য কারো টুথব্রাশের সংস্পর্শে আসছে কিনা সেটি খেয়াল করুন

সাধারনত ভাইরাসবাহী রোগগুলো সংক্রমনের একটি অন্যতম পথ হলো মুখগহ্বর, নাক ও চোখ। হাত ছাড়া অন্য যে বস্তুটি মুখগহ্বরের সরাসরি সংস্পর্শে আসে তা হলো আমাদের বহুল ব্যবহৃত টুথব্রাশ। সুতরাং এই টুথব্রাশের মাধ্যমেই আপনি সহজে আক্রান্ত হয়ে যেতে পারেন যদি কোন ভাবে আপনার টুথব্রাশটি সংক্রমিত হয়ে থাকে। হতে পারে এই টুথব্রাশটি অন্য কেউ ব্যবহার করার মাধ্যমে কিংবা অন্যের টুথব্রাশের সাথে সংস্পর্শের কারনে। তাই যেখানে আপনি ব্রাশ করার পরে টুথব্রাশটি সংরক্ষন করেন, খেয়াল রাখতে হবে সেখানে যেন অন্য কারো টুথব্রাশ আপনার ব্রাশটিকে স্পর্শ না করতে পারে।

২. দাঁত ব্রাশ করার আগে হাত ধুয়ে নিন

হাত থেকে মুখমন্ডলে সংস্পর্শ এড়ানোর জন্য আপনি হাত ধুচ্ছেন কিন্তু একই হাতে ব্রাশ স্পর্শ করার পরে সেই ব্রাশ যখন আপনি মুখে নিচ্ছেন তা থেকে রোগ সংক্রমনের আশংকা কিন্তু থেকেই যাচ্ছে। কাজেই ব্রাশ করার আগেও হাত ধোয়ার কথা ভুলবেন না। নিজের একটি রুটিন বানিয়ে ফেলুন। প্রথমে হাত ধুয়ে নিন, তারপর ব্রাশ করুন, ফ্লস করুন এবং মুখ ও হাত ধুয়ে ফেলুন।

৩. ব্রাশ করার পরে টুথব্রাশটি পরিষ্কার করুন

প্রতিবার সাধারণ ব্যবহারের পরে আপনার টুথব্রাশটি উষ্ণ গরম পানিতে ধুয়ে ফেলুন।

যদি কোন কারনে আপনার করোনা ভাইরাস টেস্ট পজিটিভ আসে সেক্ষেত্রে বাড়তি সতর্কতা প্রয়োজন। কাজেই, প্রথমে আপনার ব্রাশ গরম পানি দিয়ে ধুয়ে নিন। এর পরে একটি গ্লাসে সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইট (ব্লিচ) দ্রবণ তৈরী করে ৩০ মিনিট সম্পূর্ণ ব্রাশ বা ব্রাশের মাথার অংশটুকু ভিজিয়ে রাখুন। ৩০ মিনিট পার হয়ে গেলে, পানি দিয়ে পুনরায় ব্রাশটি ধুয়ে ফেলুন এবং শুকিয়ে রাখুন।

যেভাবে ব্লিচ তৈরী করবেনঃ ৫% সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইটের ১:১০০ অনুপাতের দ্রবণ তৈরী করতে হবে। সুতরাং বাজারে পাওয়া ৫.২৫% সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইট ৫০০ মিলিলিটার পানিতে ১ চা-চামচ (৫ মিলি লিটার) পরিমান মিশ্রিত করে যে দ্রবন তৈরী হবে সেটাই টুথব্রাশ পরিস্কারের জন্য উপযুক্ত ব্লিচ।

৪. টুথব্রাশ হোল্ডার

আপনার টুথব্রাশ যেন অন্য কারো ব্রাশের সংস্পর্শে না আসতে পারে সে জন্য প্রয়োজনে গ্লাস কিংবা জ্যামের জারের মত পাত্র ব্যবহার করতে পারেন এবং ব্যবহারের পর সকলের ব্রাশ আলাদা পাত্রে সংরক্ষন করতে পারেন। বাচ্চাদের ব্রাশগুলোতে অমোছনীয় কালি দিয়ে নাম লিখে রাখতে পারেন। কখনোই আপনার ব্রাশ কাউন্টারটপ কিংবা হ্যান্ড বেসিনে শুইয়ে রাখবেন না। মাঝে মাঝে ডিসওয়াশ বা ডিটারজেন্ট দিয়ে ব্রাশ রাখার পাত্রগুলো পরিস্কার করে ফেলুন।

ব্রাশ ও পাত্রগুলোকে নিরাপদ স্থানে রাখুন।

আপনার টুথব্রাশটি টয়েলেট থেকে দূরে নিরাপদ স্থানে রাখুন। কারন টয়েলেট এর ফ্ল্যাশ করার পরে টয়েলেটের ভেতর থেকে বাস্প বা এরোসল তৈরী হয়। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, করোনাভাইরাস মলের মাধ্যমেও ছড়াতে পারে। তাই এই বাস্প আপনার ব্রাশে স্পর্শ করলে আপনি এর মাধ্যমে ঘরে থেকেও সংক্রমিত হতে পারেন। আর টয়েলেটের ঢাকনা থাকলে ফ্ল্যাশ করার আগে এটি নামিয়ে নিতে ভুলবেন না।

৫. টুথপেস্ট ব্যবহারেও সতর্ক হোন

আপনি বা আপনার পরিবারের অন্য কেউ করোনা আক্রান্ত হলে আপনারা যদি একই টুথপেস্ট ব্যবহার করেন সেক্ষেত্রে টুথপেস্ট এর টিউবটি কখনোই ব্রাশের সাথে ছুঁইয়ে ব্যবহার করবেন না। এতে ব্রাশ থেকে পেস্ট এবং পেস্ট থেকে পুনরাং অন্য আরেকটি ব্রাশ আক্রমনের সম্ভাবনা থাকে। তাই অভ্যাস বদলে ফেলুন। একটি পরিস্কার প্লেট বা পাত্রে টুথপেস্ট নিয়ে সেখান থেকে ব্রাশে লাগিয়ে নিন। হাতের কাছে পাত্র না পেলে পরিস্কার কোন কাপড়ও ব্যবহার করতে পারেন।

৬. দাঁত ব্রাশ করার সময়েও সামাজিক দুরত্ব মেনে চলুন

বাড়ির বেসিনে দাঁত ব্রাশ করার সময় এক সাথে একাধিক মানুষ ব্রাশ করবেন না। কারন গবেষণায় দেখা গিয়েছে টুথপেস্টের ফেনার সাথে ভাইরাস বা ব্যাকটেরিয়া বাতাসে প্রবেশ করে এবং তা ওই স্থানে থাকা অন্য কোন ব্যক্তিকে সংক্রমিত করতে পারে।

৭. আপনার টুথব্রাশটি নিয়মিত পরিবর্তন করুন

নিয়ম অনুযায়ী প্রতি তিনমাস অন্তর আপনার টুথব্রাশটি বদলে নতুন টুথব্রাশ ব্যবহার করুন। তিনমাসের মধ্যে যদি টুথব্রাশের আঁশগুলো ক্ষয় হয়ে যায় তবে অতিসত্বর তা বদলে ফেলুন কারন আঁশ ক্ষয় হয়ে যাওয়া ব্রাশ আপনাকে কখনই পরিপূর্ণ পরিচ্ছন্নতা দিতে পারে না। তাছাড়া নিয়মিত পরিবর্তন করলে টুথব্রাশে ব্যাকটেরিয়াও বিস্তার করতে পারে না।

আপনি আক্রান্ত হলে টুথব্রাশ বদলে ফেলুন

আপনি যদি করোনাভাইরাস আক্রান্ত হন বা হবার লক্ষন প্রকাশ পায় তবে আক্রমনের ঝুঁকি কমাতে আপনার টুথব্রাশটি বদলে ফেলুন। যদি আক্রান্ত হয়েই থাকেন, তবে রোগ থেকে সুস্থ হবার সাথে সাথেই আপনার অন্তঃবর্তীকালীন এই ব্রাশটি বদলে আরেকটি ব্রাশ ব্যবহার করুন যেন আপনি পুনরায় আক্রান্ত না হন।

৮. প্রতিদিন দুই দাঁতের মাঝে ডেন্টাল ফ্লস বা ইন্টারডেণ্টাল ব্রাশ দিয়ে পরিস্কার করুন

৯. আপনার ডেন্টিস্টের পরামর্শ অনুযায়ী মাউথওয়াশ ব্যবহার করুন

আপনি যদি ডেন্টিস্টের কাছে যান তবে যেকোন ডেন্টাল চিকিৎসার পূর্বে ১% হাইড্রোজেন পারক্সাইড বা ০.২% – ১% পভিডন আয়োডিন গারগেল ব্যবহার করবেন কেননা এটি আপনার মুখে থাকা জীবানুর পরিমান কমিয়ে দিতে সক্ষম। তাছাড়া নিয়মিত ব্যবহারের জন্য মাউথ ওয়াশে পভিডন আয়োডিন (০.২% – ১%), সিটিলপাইরিডিনিয়াম ক্লোরাইড (০.০৫% – 0.১%), হাইড্রোজেন পারক্সাইড ১%, এসেন্সিয়াল অয়েল  অথবা অ্যালকোহল আছে কিনা সেটি নিশ্চিত করতে হবে। তবে আপনি যদি গর্ভবতী হন কিংবা শিশুকে বুকের দুধ খাওয়ান সেক্ষেত্রে ডেন্টিস্টের পরামর্শ ব্যতীত পভিডন আয়োডিন যুক্ত মাউথ ওয়াশ ব্যবহার করা ঝুঁকিপূর্ণ।

১০. আপনার বাথরুম নিয়মিত পরিস্কার রাখুন

আমরা অনেকেই বাথরুমে তোয়ালে, টুথব্রাশ বা জামাকাপড় রাখি যা এই সময়ের জন্য হানিকর। তাই সচেতনতার জন্য বাথরুমের মেঝে নিয়মিত ক্লোরিন যুক্ত উপাদান (ব্লিচ) দিয়ে পরিস্কার করুন।

১১. কোন জিজ্ঞাসা থাকলে আপনার ডেন্টিস্টের সাথে যোগাযোগ করুন

জরুরী প্রয়োজনে কিংবা নিয়মিত আপনার নিকটস্থ বাংলাদেশ মেডিকেল ও ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি) নিবন্ধিত ডেন্টিস্টের সাথে দেখা করা প্রয়োজনীয়। কিন্তু বর্তমানে একটি ডেন্টাল ক্লিনিকে একাধিক মানুষ দেখা করতে আসলে সেটি ভাইরাসের বিস্তার ত্বরাণ্বিত করতে পারে। তাই শুধুমাত্র অতি জরুরী অবস্থায় আপনার ডেন্টিস্টের সাথে দেখা করুন। ক্ষেত্রবিশেষে আপনার এপয়েন্টমেন্ট বিলম্বত বা বাতিল হতে পারে কিন্তু এতে বিচলিত হবেন না। প্রয়োজনে টেলিসেবা গ্রহন করুন।

Dental Times
ডাঃ এনাম আহমেদ, সহযোগী অধ্যাপক, ডেন্টাল পাবলিক হেলথ (ইউ.ডি.সি), খবর ও প্রকাশনা সম্পাদক (বাডি)

রেফারেন্সসমূহঃ

1. Héctor J. Rodríguez Casanovas (2020). Oral Hygiene and COVID-19, Published in Spanish at Gaceta Denta.

2.  Tooth Brushing Coronavirus and COVID 19(2020). Dental Health Foundation Ireland.

3. Wetzel WE, Schaumburg C, Ansari F, Kroeger T, Sziegoleit A (2005). Microbial contamination of tooothbrushes with different principles of filament anchoring. J Am Dent Assoc; 136:758‐65.

4. Sogi SH, Subbareddy VV, Kiran SN (2002). Contamination of tooth brushes at different time 2intervals and effectiveness of various disinfection solutions in reducing the contamination of tooth brush. J lndian Sot Pedo Prev Dent; 20:81‐5.

5. Sogi SH, Subbareddy VV, Kiran SN (2002). Contamination of tooth brushes at different time 3intervals and effectiveness of various disinfection solutions in reducing the contamination of tooth brush. J lndian Sot Pedo Prev Dent; 20:81‐5.

6. Warren DP, Goldschmidt MC, Thompson MB, Adler -Storthz K, KenneHJ(2001). The effects of toothpastes on the residual microbial contamination of toothbrushes. J Am Dent Assoc; 132:1242-5.

7. Sammons Rl, Kaur D, Neal P. Bacterial survival and biofilm formation on conventional and antibacterial toothbrushes. Biofilms 2004; 1:123-30.

8. Peng X, Xu X, Li Y, Cheng L, Zhou X, Ren B (2020). Transmission routes of 2019-nCoV and 6controls in dental practice. Int J Oral Sci. 2020;12(1):9. doi:10.1038/s41368-020-0075-9

9. Frazelle MR, Munro CL (2012). Toothbrush contamination: a review of the literature. Nurs Res Pract. doi:10.1155/2012/420630

10. Naik R, Ahmed Mujib BR, Telagi N, Anil BS, Spoorthi BR (2015). Contaminated tooth brushespotentialbthreat to oral and general health. J Family Med Prim Care.;4(3):444–448. doi:10.4103/2249-4863.161350

Advertisement
Click to comment

Uncategorized

‘বিভিন্ন টাইপের লকডাউন আসবে’ – জাহিদ মালেক

নিজস্ব প্রতিনিধি

Published

on

Dental Times

করোনা সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখীতে দেশে বিভিন্ন ধরনের লকডাউন আসতে পারে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি বলেন, ‘আজই হয়তো এর ডিক্লিয়ারেশন আসতে পারে।’

জাহিদ মালেক বলেন, ‘বিভিন্ন টাইপের লকডাউন আসবে।’

সেটা কেমন হবে জানতে চাইলে বলেন, ‘চট্টগ্রাম, কক্সবাজার ও বান্দারবানে যাওয়া আসা বন্ধ হবে। বিয়ের অনুষ্ঠান, পিকনিক, ওয়াজ মাহফিল বন্ধ করার নির্দেশনা আসতে পারে। যেখানে জনসমাগম হয় সেসব জায়গায় রেস্ট্রিকশন আসতে পারে-এভাবেই বিভিন্ন ধরনের রেস্ট্রিকশন আসবে। আমরা স্বাস্থ্য মন্ত্রাণলয়ের পক্ষ থেকে ইতোমধ্যে এ বিষয়ের প্রস্তাবনা প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ে পাঠিয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের পক্ষ থেকে ২২ দফার যে প্রোপোজাল গেছে, সেখানে বিভিন্ন ধরনের প্রস্তাব রয়েছে। তার মধ্যে প্রধানমন্ত্রী দেখে যেটা ভালো মনে করবেন সে অনুযায়ী নির্দেশনা জারি করবেন। এর মধ্যে বিভিন্ন ধরনের লকডাউন থাকবে।’

প্রস্তাবানার মধ্যে আছে:

১. সব ধরনের (সামাজিক/রাজনৈতিক/ধর্মীয়/অন্যান্য) জনসমাগম নিষিদ্ধ ঘোষণা করা। কমিউনিটি সেন্টার/কনভেনশন সেন্টারে বিয়ে/জন্মদিন/সভা/সেমিনার ইত্যাদি অনুষ্ঠান বন্ধ রাখা।

২. বাড়িতে বিয়ে/জন্মদিন ইত্যাদি অনুষ্ঠানে জনসমাগম নিষিদ্ধ ঘোষণা করা।

৩. মসজিদসহ সব উপাসনালয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ন্যূনতম উপস্থিতি নিশ্চিত করা (ওয়াক্তিয়া নামাজে ৫-এর অধিক নয় এবং জুমার নামাজে ১০-এর অধিক নয়)।

৪. পর্যটন/বিনোদন কেন্দ্র/সিনেমা হল/থিয়েটার ও সব ধরনের মেলা বন্ধ রাখা।

Continue Reading

Uncategorized

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় এআই টুল ‘ বিটকরোনা ‘

DENTALTIMESBD.com

Published

on

Dental Times

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় ‘বিটকরোনা’ নামের করোনা শনাক্তকারী কৃত্তিম বৃদ্ধিমত্তা টুল তৈরি করেছে দেশি সফটওয়্যার সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান ইজেনারেশন । তাদের দাবি, করোনাবট এবং এক্স-রে ইমেজ অ্যানালাইসিস টুল উন্নত উপায়ে ও দ্রুতগতিতে করোনাভাইরাস আক্রান্ত কি না, তা নিজে থেকে শনাক্ত করার জন্য ব্যবহার করা যাবে।

ইজেনারেশনের এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ব্যবহারকারী নিজেই কোভিড-১৯ পরীক্ষার জন্য উপযুক্ত কি না, সেই সিদ্ধান্ত যাতে নিতে পারেন, এ জন্য ইজেনারেশন করোনাবটকে সেলফ-টেস্টিং টুলস হিসেবে তৈরি করেছে। এটি ব্যবহারকারীকে নিজে থেকেই তাৎক্ষণিকভাবে আইসোলেশনে থাকতে উৎসাহ দেয়।

এটি স্বাস্থ্যকর্মীদের সময় বাঁচাতে পারে। ব্যবহারকারীদের প্রশ্ন বুঝতে পারা এবং সেটির যথাযথ উত্তর দেয়ার জন্য করোনাবটটিতে কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তার প্রয়োগ করা হয়েছে। বটটি ইংরেজি, বাংলা এবং বাংলা ভাষাকে ইংরেজি অক্ষরে লেখা প্রশ্নের উত্তর দিতে পারে।

এর পাশাপাশি ইজেনারেশন মেশিন লার্নিং প্রযুক্তির মাধ্যমে এক্স-রে ছবি বিশ্লেষণী টুল তৈরি করেছে যা বুকের এক্স-রে ছবি দেখে কোভিড-১৯ শনাক্তকরণে কার্যকর হতে পারে। এই টুল ব্যবহার করে ব্যবহারকারীরা সুস্থ আছেন কিনা, মৃদু নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত কিনা অথবা কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়েছেন কিনা সেটি জানা যাবে। ইজেনারেশন বিটকরোনা (http://beatcorona.egeneration.co/) ওয়েবসাইটে গিয়ে এক্স-রে ছবি আপলোড করলে টুলটি ফলাফল দেখাবে

ইজেনারেশন গ্রুপের চেয়ারম্যান শামীম আহসান বলেন, ‘ইজেনারেশন বিগত দুই বছর ধরে স্বাস্থ্যসেবা সফটওয়্যার ও অ্যানালিটিক্স নিয়ে নিবিড়ভাবে কাজ করে আসছে এবং এর পরিপ্রেক্ষিতে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ও মেশিন লার্নিং প্রযুক্তির যে সক্ষমতা আমাদের তৈরি হয়েছে, সেটি ব্যবহার করে করোনাভাইরাস প্রতিরোধের এই সল্যুশনগুলি আমরা স্বল্প সময়ে তৈরি করতে পেরেছি।’

অন্যান্য

Continue Reading

Uncategorized

মির্জাপুরে নারীসহ আরও দুইজনের করোনা পজিটিভ

DENTALTIMESBD.com

Published

on

মির্জাপুরে নারীসহ আরও

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে এক নারীসহ আরও দুইজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তারা হলেন, উপজেলার ভাওড়া ইউনিয়নের কামাড়পাড়া গ্রামের ৫৫ বছরের এক নারী ও জামুর্কী ইউনিয়নের পাকুল্যা গ্রামের ৩০ বছরের এক যুবক।

আক্রান্ত ওই নারী ঢাকায় বোনের বাসায় এবং যুবক ঢাকায় জুয়েলারি দোকানে থাকতেন। ২৬ এপ্রিল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্যকর্মীরা ৬ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠান। এরমধ্যে তাদের ওই দুইজনের করোনা পজিটিভ ও চারজনের নেগেটিভ আসে বলে স্বাস্থ্যকর্মী এজাজুল হক হাসান রাত সাড়ে এগারোটায় জানিয়েছেন।

এর আগে ৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জের পলি ক্লিনিকের সিনিয়র ওটি বয় অখিল চন্দ্র সরকারের করোনা পজিটিভ হলে ঢাকার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে ভালো হয়ে ২৪ এপ্রিল বাড়ি আসেন।

এ পর্যন্ত মির্জাপুরে বিভিন্ন এলাকা থেকে স্বাস্থ্যকর্মীরা ১৫২ জনের নমুনা সংগ্রহ করেন। এরমধ্যে ১৪৯ জনের করোনা নেগেটিভ ও ৩ জনের পজিটিভ আসে।

উপজেলা প্রশাসন রাতেই তাদের ঢাকায় কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে পাঠানো এবং আশপাশের অর্ধশত বাড়ি লকডাউনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানা গেছে।

অন্যান্য

Continue Reading

Uncategorized

করোনা আক্রান্তের ১১ ভাগ স্বাস্থ্যকর্মী, চিকিৎসা ব্যবস্থা ভেঙে পড়ার শঙ্কা

DENTALTIMESBD.com

Published

on

চিকিৎসক-নার্সসহ ৬৬০ জন স্বাস্থ্যকর্মী মরণব্যাধী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, যা দেশের মোট আক্রান্তের ১১ ভাগ। আজ সোমবার (২৭ এপ্রিল) চিকিৎসকদের সংগঠন বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ) এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলা হয়েছে।

Dental Times

সংগঠনটির মহাসচিব ডা. মো. ইহতেশামুল হক চৌধুরী স্বাক্ষরিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, বৈশ্বিক করোনা মহামারীতে বাংলাদেশও গভীর সংকটের সম্মুখীন। আজ সোমবার পর্যন্ত দেশের করোনায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৫ হাজার ৯১৩ জন এবং মারা গেছেন ১৫২ জন। 

এতে আরও বলা হয়েছে, করোনা যুদ্ধের সম্মুখ সারির যোদ্ধা চিকিৎসক, নার্স ও মেডিকেল টেকনোলজিস্টসহ সেবাদানকারীগণ আশঙ্কাজনকভাবে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। এ পর্যন্ত ২৯৫ জন চিকিৎসক, ১১৬ জন নার্স ও ২৪৯ জন অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীসহ চিকিৎসা পেশায় নিয়োজিত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৬৬০, যা দেশের মোট আক্রান্তের ১১ ভাগ। 

চিকিৎসক ও চিকিৎসা সেবাদানকারী ব্যক্তিগণ এই হারে আক্রান্ত হতে থাকলে আগামীতে চিকিৎসা ব্যবস্থা ভেঙে পড়তে পারে। 

তাই বর্তমান প্রেক্ষাপটে সরকারের প্রতি নিম্নলিখিত প্রস্তাবনাসমূহ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবি জানায় বিএমএ। এগুলো হলো:

১. দ্রুততম সময়ের মধ্যে কোভিড হাসপাতালে নিয়োজিত চিকিৎসক, নার্সসহ সকল স্বাস্থ্যকর্মীর জন্য সঠিক মানের পিপিই, এন-৯৫ বা এর সমমানের মাস্ক প্রদান করা জরুরি। 
২. নন-কোভিড হাসপাতালের প্রবেশদ্বারে ট্রায়াজ সিস্টেম চালু করে সেখানে কর্মরত সকল চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের উপযুক্ত পিপিই, এন-৯৫ বা সমমানের মাস্ক প্রদান নিশ্চিত করা সময়ের দাবি। 
৩. সকল সরকারি বেসরকারি হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক, নার্স ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীদের আবাসন, প্রয়োজনীয় খাদ্য সরবরাহ ও হাসপাতালে যাতায়াতের ব্যবস্থা নিশ্চিত করা জরুরি।

Continue Reading

Uncategorized

করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা দেড়শ’ ছাড়াল, আক্রান্ত আরও ৪৯৭

DENTALTIMESBD.com

Published

on

অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা

দেশে মহামাহারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও সাতজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে ভাইরাসটিতে ১৫২ জনের মৃত্যু হলো। আক্রান্ত হিসেবে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন আরও ৪৯৭ জন। ফলে দেশে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা হয়েছে পাঁচ হাজার ৯১৩।

সোমবার (২৭ এপ্রিল) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। অনলাইনে বুলেটিন উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

তিনি জানান, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় চার হাজার ১৯২টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। এর মধ্যে তিন হাজার ৮১২টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। সব মিলিয়ে নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫০ হাজার ৪০১টি। নতুন যে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে তার মধ্যে আরও ৪৯৭ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ফলে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে পাঁচ হাজার ৯১৩ জনে। আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে মারা গেছেন আরও সাতজন, এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ১৫২ জনে। এছাড়া সুস্থ হয়েছেন আরও নয়জন। ফলে মোট সুস্থ হয়েছেন ১৩১ জন।

করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি এড়াতে সবাইকে ঘরে থাকার এবং স্বাস্থ্য অধিদফতর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ-নির্দেশনা মেনে চলার অনুরোধ জানানো হয় বুলেটিনে।

গত ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস এখন গোটা বিশ্বে তাণ্ডব চালাচ্ছে। চীন পরিস্থিতি অনেকটাই সামাল দিয়ে উঠলেও এখন মারাত্মকভাবে ভুগছে ইউরোপ-আমেরিকা-এশিয়াসহ বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চল। এ ভাইরাসে বিশ্বজুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে দুই লাখ সাত হাজার। তবে পৌনে নয় লাখের বেশি রোগী ইতোমধ্যে সুস্থ হয়েছেন।

গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর প্রথম দিকে কয়েকজন করে নতুন আক্রান্ত রোগীর খবর মিললেও এখন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে এ সংখ্যা। বাড়ছে মৃত্যুও।

প্রাণঘাতী এই ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে সরকার সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছে। নিয়েছে আরও নানা পদক্ষেপ। এসব পদক্ষেপের মূলে রয়েছে মানুষে মানুষে সামাজিক দূরত্ব বজায়, বিশেষত ঘরে রাখা। কিন্তু সশস্ত্র বাহিনী, র‌্যাব ও পুলিশের টহল জোরদার করেও মানুষকে ঘরে রাখা যাচ্ছে না বিধায় করোনাভাইরাসের বিস্তার উদ্বেগজনক পর্যায়ে পৌঁছাতে পারে বলে আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের।

দেশে করোনা পরিস্থিতির সর্বশেষ আপডেট (27.04.2020)

Continue Reading
Dental Times
জাতীয়3 days ago

সাংবাদিক রোজিনার জামিন মঞ্জুর

Dental Times
স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়1 week ago

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ছয় কর্মকর্তাকে বদলি

Dental Times
স্বাস্থ্য প্রশাসন1 week ago

রোজিনা ইসলামের বিরুদ্ধে অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্টে মামলা

Dental Times
জাতীয়1 week ago

কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা

Dental Times
জাতীয়1 week ago

ইনসেপ্টার কারখানায় সিনোফার্মের টিকা উৎপাদনের সংবাদ সঠিক নয়

Dental Times
জাতীয়1 week ago

টিকা তৈরির অনুমোদন পেল ইনসেপ্টা

Dental Times
জাতীয়2 weeks ago

ঈদের পর বিধিনিষেধ আরও এক দফা বাড়তে পারে

Dental Times
আন্তর্জাতিক2 weeks ago

দুই ধরনের দুই ডোজ টিকায় হতে পারে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া

Dental Times
জাতীয়2 weeks ago

দেশে করোনায় প্রাণহানি আবারও বেড়েছে

চট্টগ্রামে টিকাকেন্দ্রে হট্টগোল
করোনা পরিস্থিতি2 weeks ago

চট্টগ্রামে টিকাকেন্দ্রে হট্টগোল, সড়ক অবরোধ

Dental Times
জাতীয়2 weeks ago

কোটি কোটি টাকার ওষুধ মেয়াদোত্তীর্ণ হওয়ার পথে!

Dental Times
জাতীয়3 weeks ago

দেশে শনাক্ত করোনার ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টঃ আইইডিসিআর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
জাতীয়3 weeks ago

যে যেখানে আছেন সেখানেই ঈদ উদযাপন করেন: প্রধানমন্ত্রী

Dental Times
জাতীয়3 weeks ago

সব বিশ্ববিদ্যালয়ে অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
জাতীয়3 weeks ago

বেসরকারী মেডিকেল কলেজ ও ডেন্টাল কলেজ খসড়া আইন এর অনুমোদন

Dental Times
ছবি ও গল্প3 weeks ago

প্রাক্তন শিক্ষার্থী ও ইন্টার্ন চিকিৎসকদের উদ্যোগে ইফতার বিতরণ

Dental Times
জাতীয়3 weeks ago

ঈদের আগে গণপরিবহন চালুর কথা ভাবছে সরকার

Dental Times
জাতীয়4 weeks ago

ঈদ পর্যন্ত ‘লকডাউন’ পর্যালোচনায় সরকার

Dental Times
আন্তর্জাতিক4 weeks ago

অক্সিজেনের জন্য টেন্ডুলকারের ১ কোটি রুপি

Dental Times
আন্তর্জাতিক4 weeks ago

উন্নয়নশীল দেশে টিকার ফর্মুলা দিতে রাজি নন গেটস

Advertisement

সম-সাময়িক

Enable Notifications From DentalTimesBD    OK No thanks